Header Border

ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৮ই জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ৪ঠা আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ (বর্ষাকাল) ২৯.৯৬°সে

বৃষ্টিহীন বৈশাখের তীব্র গরমে অতিষ্ঠ জনজীবন

*সময় সংবাদ লাইভ রির্পোটঃ বৃষ্টিহীন বৈশাখের তীব্র গরমে অতিষ্ঠ জনজীবন। এই গরমে জনজীবনে চরম দুর্ভোগ নেমে এসেছে। যারা কর্মস্থল কিংবা অন্যকোন কারণে দিনের বেলায় বাইরে বের হন তারা পড়ছেন বিপাকে। আবহাওয়ার খবরে বলা হয়েছে, বৃষ্টিহীন বৈশাখের সপ্তাহ জুড়ে বিস্তীর্ণ জনপদে তপ্ত রোদের প্রখরতা অব্যাহত রয়েছে। বিরাজ করছে মৃদু থেকে তীব্র ধরনের তাপপ্রবাহ। এই তাপপ্রবাহ আগামী তিন দিন তাপমাত্রা বাড়তে পারে বলে জানিয়েছে আবহাওয়া অফিস। মঙ্গলবার রাজশাহীতে বছরের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা রেকর্ড হয়েছে ৪০.৩ ডিগ্রি সেলসিয়াস, যা আগের দিন যশোরে ছিল যশোরে ৪০ ডিগ্রি। রাজধানী ঢাকাতেও তাপমাত্রা অসহনীয়।
আবহাওয়াবিদ বজলুর রশীদ সময় সংবাদ লাইভকে  জানান, চলতি তাপপ্রাহ ‘আরও কয়েকদিন’ অব্যাহত থাকবে, যেখানে বৃষ্টি না থাকায় গরমের তীব্রতা বেশি।তিনি বলেন, রাজশাহী, পাবনা, চুয়াডাঙ্গা ও কুষ্টিয়া অঞ্চলের উপর দিয়ে তীব্র তাপপ্রবাহ বয়ে যাচ্ছে। বগুড়া, নওগাঁ, সিরাজগঞ্জ, খুলনা, মংলা, সাতক্ষীরা, যশোর, রাঙ্গামাটি অঞ্চলসহ ঢাকা ও বরিশাল বিভাগের উপর দিয়ে মৃদু থেকে মাঝারি ধরনের তাপপ্রবাহ বয়ে যাচ্ছে।  আরও কয়েকদিন এ তাপপ্রাহ অব্যাহত থাকবে। চলতি মৌসুমের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা এখন রাজশাহীতে। সামান্য বাড়বে তাপমাত্রা।  থার্মোমিটারের পারদ চড়তে চড়তে যদি ৩৬ থেকে ৩৮ ডিগ্রি সেলসিয়াসে ওঠে, আবহাওয়াবিদরা তাকে মৃদু তাপপ্রবাহ বলেন। উষ্ণতা বেড়ে ৩৮ থেকে ৪০ ডিগ্রি সেলসিয়াস হলে তাকে বলা হয় মাঝারি তাপপ্রবাহ। আর তাপমাত্রা ৪০ ডিগ্রি ছাড়িয়ে গেলে তাকে তীব্র তাপপ্রবাহ হিসেবে বিবেচনা করে আবহাওয়া অফিস।
তাপ প্রবাহের বিষয়ে বলা হয়েছে, রাজশাহী, পাবনা, চুয়াডাঙ্গা ও কুষ্টিয়া অঞ্চলের উপর দিয়ে তীব্র তাপপ্রবাহ বয়ে যাচ্ছে। তার মধ্যে মঙ্গলবার রাজশাহীতে ৪০ দশমিক ৩ ডিগ্রি, চুয়াডাঙ্গা, কুষ্টিয়ার কুমারখালী ও পাবনার ঈশ্বরদীতে ৪০ ডিগ্রি সেলসিয়াস করে তাপমাত্রা রেকর্ড হয়েছে।
আবহাওয়া অফিস জানিয়েছে, বগুড়া, নওগাঁ, সিরাজগঞ্জ, খুলনা, মংলা, সাতক্ষীরা, যশোর ও রাঙামাটি অঞ্চলসহ ঢাকা এবং বরিশাল বিভাগে মাঝারি তাপপ্রবাহ অব্যাহত থাকতে পারে। এছাড়া অপরিবর্তিত থাকতে পারে দিন ও রাতের তাপমাত্রা।
আবহাওয়ার পূর্বাভাসে গতকাল বলা হয়েছে, রংপুর,রাজশাহী, ময়মনসিংহ ও সিলেট বিভাগের দু’এক জায়গায় অস্থায়ীভাবে দমকা অথবা ঝড়ো হাওয়াসহ বৃষ্টি বা বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে। এছাড়া দেশের অন্যস্থানে অস্থায়ীভাবে আংশিক মেঘলা আকাশসহ আবহাওয়া শুষ্ক থাকতে পারে।
সপ্তাহের শুরুতে আবহাওয়ার সামান্য পরিবর্তন হতে পারে। আবহাওয়ার সিনপটিক অবস্থায় বলা হয়েছে, পশ্চিমা লঘুচাপের বাড়তি অংশ পশ্চিমবঙ্গ ও এর কাছাকাছি এলাকায় অবস্থান করছে। এর বাড়তি অংশ উত্তর বঙ্গোপসাগর পর্যন্ত বিস্তৃত রয়েছে।

আপনার মতামত লিখুন :

আরও পড়ুন

হজে গিয়ে ১০ বাংলাদেশির মৃত্যু
কর ও ভ্যাটের চাপ আরও বাড়বে
ইসরাইলের সামরিক ঘাঁটিতে ভয়াবহ ড্রোন হামলা হিজবুল্লাহর
ফিলিস্তিনকে স্বীকৃতি দিতে সব দেশের প্রতি আহ্বান জাতিসংঘের
মোদি না রাহুল, কে হচ্ছেন ভারতের কান্ডারি?
ঢাকার কাছেই চলে এসেছে সবচেয়ে বিষধর রাসেলস ভাইপার

আরও খবর