Header Border

ঢাকা, শুক্রবার, ১৯শে এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ৬ই বৈশাখ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ (গ্রীষ্মকাল) ২৯.৯৬°সে

এবার মর্টার শেলের আওয়াজে কেঁপেছে ফুলতলী সীমান্ত, আতঙ্ক কাটছে না

সময় সংবাদ রিপোর্ট : বান্দরবানের ঘুমধুম ও তুমব্রু সীমান্তের ওপারে মিয়ানমারের অভ্যন্তরে টানা ১০ দিন ধরে চলা গোলাগুলি থামে রোববার। ওইদিন সীমান্তের ওপার থেকে গোলাগুলির শব্দ আসেনি। তবে সোমবার ভোর এবং রাতে কক্সবাজারের পালংখালীর আঞ্জুমান পাড়া থেকে মিয়ানমারের ঢেকবুনিয়া চেকপোস্টে গোলাগুলির শব্দ শোনা গেছে। সীমান্তের ওপারে দেখা গেছে ধোয়া। এতে এপারে আতঙ্ক দেখা দিয়েছে।সোমবার রাতভর থেমে থেমে গুলির শব্দ শোনা গেছে। সীমান্ত এলাকায় না যেতে মাইকিং করেছে বিজিবি।

স্থানীয়দের ধারণা, আরকান আর্মির অবস্থানে মিয়ানমার সরকারের বিমান হামলার শঙ্কাতেই এমন সতর্কতা।এদিকে সঙ্ঘাতের জেরে নাফ নদী পেরিয়ে বাংলাদেশে ঢোকার চেষ্টা করছে রোহিঙ্গারা। তবে অনুপ্রবেশ ঠেকাতে সতর্ক অবস্থানে রয়েছে বিজিবি।

স্থানীয় বাসিন্দারা বলছেন, গোলাগুলির শব্দ শোনা গেছে। সীমান্ত এলাকায় যেতে নিষেধ করে দেয়া হয়েছে। ঝুঁকিপূর্ণ বিবেচনায় সীমান্ত এলাকায় না যেতে বিজিবির পক্ষ থেকে মাইকিং করা হয়েছে বলে জানা যায়।স্থানীয়রা বলছেন, তারা যেতে পারছেন না ক্ষেত–খামারে। বন্ধ আছে গরু-ছাগল চরানো।

এমন পরিস্থিতিতে এসব এলাকার সীমান্ত পরিদর্শনে আসেন চট্টগ্রামের বিভাগীয় কমিশনার ও ডিআইজি।তারা জানান, বান্দরবানের ঘুমধুম উচ্চ বিদ্যালয়ে মিয়ানমারের অনুপ্রবেশকারীরা থাকায় এসএসসি পরীক্ষা নেয়া হবে পাশের স্কুলে।

চট্টগ্রাম বিভাগীয় কমিশনার তোফায়েল ইসলাম বলেন, ‘স্থানীয় এলাকার সাধারণ জনগণকে সীমান্ত এলাকা এড়িয়ে চলার জন্য আহ্বান করা হয়েছে। যারা পাশের দেশ থেকে বাংলাদেশে এসেছে, তাদের নিয়েও কূটনৈতিক আলোচনা হচ্ছে। আমরা আশা করছি, শিগগির তাদের ওই দেশে ফিরিয়ে দিতে পারব।’

এদিকে দিনের বেলায় নাফ নদীতে ছোট ছোট ডিঙিতে রোহিঙ্গাদের ভাসতে দেখা গেছে।

স্থানীয় লোকজন বলছেন, বিজিবি ও কোস্টগার্ডের সতর্ক পাহারার কারণে দিনে ঢুকতে পারছে না রোহিঙ্গারা। কিন্তু রাতে সুযোগ বুঝে নাফ নদী পাড়ি দেয়ার অপেক্ষা করছে তারা। তবে এ বিষয়ে গণমাধ্যমে কথা বলতে চায়নি বিজিবি ও কোস্ট গার্ড।

সম্প্রতি ঘুমধুম সীমান্তে মিয়ানমার সেনাবাহিনীর সাথে আরাকান আর্মির সংঘর্ষে বাংলাদেশের অভ্যন্তরে বেশ কয়েকটি মর্টারশেল ও গুলি এসে পড়ে। এতে দু’জন নিহত ও চারজন আহত হয়। সীমান্তের ওপারে হেলিকপ্টার থেকেও ব্যাপক গুলি ও বোমা বর্ষণ করা হয়। এসব বিষয় নিয়ে বিজিবি কড়া প্রতিবাদও জানায়। তুমব্রু সীমান্তে সেনাবাহিনীর বোম ডিসপোজাল ইউনিটের সদস্যরা সীমান্ত থেকে পাওয়া দু’টি রকেট লাঞ্চার বোম নিষ্ক্রিয় করেছে। বিকট শব্দে এগুলো বিস্ফোরণ ঘটিয়ে নিষ্ক্রিয় করা হয়। এসময় সীমান্তে নিরাপত্তা জোরদার করা হয়।

অন্যদিকে ঘুমধুম সীমান্তের উচ্চ বিদ্যালয়ে অবস্থান করা মিয়ানমার বিজিপির ১৫৮ সদস্যকে এখনো সেখান থেকে নিয়ে যাওয়া হয়নি। তবে দুয়েক দিনের মধ্যে তাদের সেখান থেকে সরিয়ে নিয়ে যাওয়া হবে বলে জানা গেছে।

সীমান্তে গোলাগুলি না হওয়ায় পরিস্থিতি এখন স্বাভাবিক রয়েছে। সীমান্ত এলাকায় বসবাসকারী বেশিভাগ লোকজনই এখন ঘরে ফিরেছে। তবে যে পাঁচটি স্কুল বন্ধ করা হয়েছিল সেগুলো এখনো খোলা হয়নি।
পরিস্থিতি একেবারেই স্বাভাবিক হয়ে গেলে স্কুলগুলো খুলে দেয়া হবে বলে জানিয়েছেন শিক্ষা কর্মকর্তা ফরিদুল আলম হুসাইনি।

বান্দরবানের জেলা প্রশাসক শাহ মোজাহিদ উদ্দিন জানান, পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের অনুমতির পরই বাংলাদেশ অবস্থানকারী মিয়ানমারের বিজিপি সদস্যদের সে দেশে জাহাজে করে নিয়ে যাওয়া হবে।

জিবির অধিনায়ক লেফটেন্যান্ট কর্নেল আব্দুল্লাহ আল মাশরুকী বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

এদিকে বান্দরবানের নাইক্ষ্যংছড়ির ফুলতলী সীমান্তে মিয়ানমারের অভ্যন্তর থেকে ভেসে আসছে মর্টারশেল বিস্ফোরণের শব্দ।

গতকাল সোমবার সকাল ৮টা ২০ মিনিটের সময় নাইক্ষ্যংছড়ি সদর ইউনিয়নের ফুলতলী সীমান্ত পিলার ৪৭ এলাকায় মর্টারশেল বিস্ফোরণের শব্দ শুনতে পান স্থানীয়রা। এরপর গভীর রাতেও দুয়েকটি শব্দ শোনা গেছে।

স্থানীয়রা জানায়, কমপক্ষে চারটি মর্টারশেল বিস্ফোরণের আওয়াজ সীমান্ত এলাকায় আসে।তারা আরো জানায়, এসময় ভয়ে বাড়িতে আশ্রয় নিয়েছিল তারা। কারণ মর্টার শেলের আওয়াজ খুব ভয়াবহ ছিল।

উল্লেখ্য, বেশ কয়েকদিন ধরে উক্ত সীমান্ত এলাকা দিয়ে বিস্ফোরণের কোনো আওয়াজ সীমান্ত এলাকায় আসেনি। কিন্তু গতকাল সোমবার রাত থেকে গোলাগুলির শব্দ শোনা যাওয়ায় ধারণা করা হচ্ছে, ওই সীমান্ত এলাকায় মিয়ানমারের ভিতরে হয়তো নতুন করে বিদ্রোহী সশস্ত্র গ্রুপের সাথে সে দেশের সরকার নিয়ন্ত্রিত বাহিনীর সংর্ঘষ হওয়ার কারণে বিস্ফোরিত শব্দ বাংলাদেশের অভ্যন্তরে এসেছে।

এ বিষয়ে জানতে ১১-বিজিবির অধিনায়ক লে. কর্নেল মো: সাহল আহমদ নোবেলকে একাধিকবার ফোন দিলেও তার ফোন রিসিভ করেননি।

আপনার মতামত লিখুন :

আরও পড়ুন

বোতলজাত সয়াবিন তেলের দাম বাড়াল সরকার
উপজেলায় এমপি মন্ত্রীর সন্তান-স্বজনরা প্রার্থী হলে ব্যবস্থা
সব বিরোধী দলের উপজেলা নির্বাচন বর্জন
৯৬ হাজার শিক্ষক নিয়োগ আবেদন শুরু, যেভাবে করবেন আবেদন
৯৬ হাজার শিক্ষক নিয়োগ আবেদন শুরু, যেভাবে করবেন আবেদন
মুজিবনগর দিবসে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা

আরও খবর